ব্যালন ডি’অর ২০২১ র‍্যাঙ্কিং: মেসির হাতে ৭ম ব্যালন ডি’অর?

করোনা ভাইরাসের কারনে ২০২০ সালের ব্যালন ডি’অর পুরষ্কার প্রদান বাতিল করে দেয় ফরাসি ক্রীড়া সাময়িকী ফ্রান্স ফুটবল (France Football)। তবে খুশির বিষয় এই যে, তারা আবার এই বছর থেকেই ফুটবলের সবচেয়ে বড় ব্যক্তিগত সম্মানের পুরস্কারটি চালুর সিদ্ধান্ত নিয়েছে। প্রতিবছরের মত এবারও বিভিন্ন দেশের সাংবাদিক, জাতীয় দলের অধিনায়ক এবং কোচদের ভোটের সংমিশ্রণের ভিত্তিতে বাছাই করা হবে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ীকে। যদিও ব্যালন ডি’অর জয়ী ফুটবলারের নাম ঘোষণা করা হবে ডিসেম্বরে, তবে ইতিমধ্যেই কয়েকজন খেলোয়াড় এই পুরস্কার জয়ে অনেকটাই এগিয়ে আছেন। আপনার কি মনে হয়? কে হবে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ী ফুটবলার? লেভানডফস্কি, জর্জিনহো, কান্তে নাকি আবার সেই মেসি বা রোনালদোর হাতেই উঠবে ব্যালন ডি’অর ২০২১?

ব্যালন ডি’অর ২০২১ র‍্যাঙ্কিং

১০. ফেদেরিকো চিয়েসা

ইতালি এবং জুভেন্টাস

ফেদেরিকো চিয়েসা
ফেদেরিকো চিয়েসা

২০২১ সালে ফেদেরিকো চিয়েসার গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ১৪
  • অ্যাসিস্ট: ৫
  • পুরস্কার: ইউরো ২০২০, কোপা ইতালিয়া এবং সুপারকোপা ইতালিয়ানা

ইউরো ২০২০ জয়ের অন্যতম ভূমিকা রেখেছেন ফেদেরিকো চিয়েসা। বড় ম্যাচের খেলোয়াড় হিসেবে বলা হচ্ছে তাকে। বিশেষ করে ইউরো ২০২০ এর সেমিফাইনাল এবং ফাইনাল উভয় ম্যাচেই খুব ভালো পারফর্ম করেছেন ইতালি এবং জুভেন্টাস দলের এই খেলোয়াড়।

ধারনা করা হচ্ছে রোনালদো পরবর্তী জুভেন্টাস হয়তো এই চিয়েসাকে কেন্দ্র করেই সাজাবে সিরি আ আর ইউরোপ জয়ের মিশন। যদিও বছর শেষের আগে নতুন মউসুমের বেশ কিছু খেলা আছে, তাই সেই ম্যাচগুলোতে ভালো খেলতে পারলে চিয়েসা ব্যালন ডি’অর ২০২১ এর টপ ৫ এ জায়গা করে নিতে পারবেন।

৯. আর্লিং হালান্ড

নরওয়ে এবং বরুসিয়া ডর্টমুন্ড

আর্লিং হালান্ড
আর্লিং হালান্ড

২০২১ সালে আর্লিং হালান্ডের গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ২৫
  • অ্যাসিস্ট: ৯
  • পুরস্কার: ডিএফপি-পোকাল

ইউরো ২০২০ এবং কোপা আমেরিকা ২০২০ এর আলোর ঝলকানি ২০২১ সালের শুরুতে দিকে হ্যাল্যান্ডের দারুণ পারফরম্যান্সগুলোকে অনেকটাই নিভিয়ে দিয়েছে। এমনকি সর্বশেষ চ্যাম্পিয়ন্স লিগে সবাইকে ছাপিয়ে হালান্ডই ১০ গোল করে সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় শীর্ষস্থানটি দখল করেছিলেন।

তাই নরওয়ের এই তারকা খেলোয়াড় যদি নতুন মৌসুমেও আগের ফর্মেই শুরু করেন, তবে আশা করা যায় তিনি ব্যালন ডি’অর ২০২১ এর শীর্ষ ১০ এই থাকবেন।

৮. ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো

পর্তুগাল এবং জুভেন্টাস

ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো
ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো

২০২১ সালে ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদোর গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ২৭
  • অ্যাসিস্ট: ৪
  • পুরস্কার: কোপা ইতালিয়া এবং সুপারকোপা ইতালিয়ানা

ব্যালন ডি’অর ২০২১ এর লিস্টে রোনালদো ৮ নম্বরে! হ্যাঁ, পর্তুগীজ এই তারকা খেলোয়াড় ইউরো ২০২০ এর গোল্ডেন বুট জিতলেও দল বাদ পড়েছে শেষ ১৬ তেই। ঐদিকে চ্যাম্পিয়ন্স লিগ তো জিততেই পারেননি, ইন্টার মিলানের কাছে হারিয়েছেন ৯ বছরের আধিপত্যের সিরি আ। তাই এবছর ব্যালন ডি’অর জয়ের সম্ভাবনা খুবই কম ৫ বারের ব্যালন ডি’অর জয়ী রোনালদোর।

তাই নতুন মৌসুমের শুরুতে খুব ভালো কিছু না করতে পারলে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ের আশা তো ছাড়তেই হবে, এমনকি শীর্ষ ৩ এও জায়গা হারাতে পারেন।

৭. কেভিন ডি ব্রুইনা

বেলজিয়াম এবং ম্যানচেস্টার সিটি

কেভিন ডি ব্রুইনা
কেভিন ডি ব্রুইনা

২০২১ সালে কেভিন ডি ব্রুইনার গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ১০
  • অ্যাসিস্ট: ১০
  • পুরস্কার: প্রিমিয়ার লিগ এবং কারাবাও কাপ

ম্যানচেস্টার সিটির হয়ে প্রিমিয়ার লিগ এবং কারাবাও কাপ জিতেছেন, চ্যাম্পিয়ন্স লীগের ফাইনাল খেলেছেন। জিতেছেন পিএফএ প্লেয়ার অফ দ্য ইয়ার পুরস্কার। এমনকি বর্তমান সময়ের সেরা ক্রিয়েটিভ মিডফিল্ডার হিসাবেও ধরা হয় কেভিন ডি ব্রুইনাকে।

ক্লাব পর্যায়ে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ের সকল উপকরণই ছিল এই বেলজিয়ান তারকার। তবে অন্যতম ফেবারিট দল হয়েও ইউরো ২০২০ জিততে না পারায় একটু পিছিয়ে পড়েছেন তিনি। আর তাই ২০২১ এর ব্যালন ডি’অর র‍্যাংকিং এ শীর্ষ ৫ এ থাকতে তাকে নতুন মৌসুমে ভালো শুরু করতেই হবে।

৬. কিলিয়ান এমবাপ্পে

ফ্রান্স এবং প্যারিস সেন্ট জার্মেই

কিলিয়ান এমবাপ্পে
কিলিয়ান এমবাপ্পে

২০২১ সালে কিলিয়ান এমবাপ্পের গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ২৯
  • অ্যাসিস্ট: ৭
  • পুরস্কার: কোপ দে ফ্রান্স এবং ট্রফি ডেস চ্যাম্পিয়নস

বছর শুরুতে তিনিই ছিলেন ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ের সবচেয়ে ফেবারিট। কিন্তু ক্লাব এবং জাতীয় উভয় ক্ষেত্রেই তিনি হতাশ হয়েছেন। প্যারিস সেন্ট জার্মেই এর হয়ে চ্যাম্পিয়ন্স লীগ জিততে পারেননি, সাথে হারিয়েছেন ফ্রেঞ্চ লীগ ওয়ান এর শিরোপা। এরপর ইউরো ২০২০ এর সবচেয়ে ফেবারিট দল হয়েও সুইজারল্যান্ডের কাছে হেরে ফ্রান্স বাদ পড়েছে শেষ ১৬ তেই। যেখানে ট্রাইবেকারে গোল করতে ব্যর্থ হয়েছেন তিনি।

তাই প্যারিস সেন্ট জার্মেই এর হয়ে নতুন মৌসুমে খুব ভালো না করলে শীর্ষ ৩ এ কিলিয়ান এমবাপ্পে থাকবেন না বলা যায়। তবে শীর্ষ ৫ এ জায়গা করে নিবেন আশা করা যায়।

৫. রোমেলু লুকাকু

বেলজিয়াম এবং ইন্টার মিলান

রোমেলু লুকাকু
রোমেলু লুকাকু

২০২১ সালে রোমেলু লুকাকুর গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ২২
  • অ্যাসিস্ট: ৭
  • পুরস্কার: সিরি আ

বেলজিয়ামের সোনালি প্রজন্মের তারকা খেলোয়াড় রোমেলু লুকাকু। তবে অন্যতম ফেবারিট দল হয়েও ইউরো ২০২০ জিততে না পারায় একটু পিছিয়ে পড়েছেন তিনি। যদিও নিজে খারাপ করেছেন বলা যাবে না। কারন দলের হয়ে ৫ ম্যাচে ৪ গোল করার পাশাপাশি জায়গা করে নিয়েছেন ইউরো ২০২০ এর টীম অব দ্যা টুর্নামেন্টে। তবে দলের হয়ে কিছু না জিতাতেই পিছিয়ে গেলেন তিনি।

এর আগে ইন্টার মিলানের হয়েও জিতেছেন শিরোপা। জুভেন্টাসের টানা ৯ মৌসুমের আধিপত্য ভেঙ্গে শিরোপা জয়ের অন্যতম কারিগর তিনি। হয়েছেন মোস্ট ভ্যালুয়েবল প্লেয়ার। তবে এরপরেও নতুন মৌসুমে আরো ভালো কিছু না করলে ব্যালন ডি’অর ২০২১ এর শীর্ষ তিনে জায়গা করে নেওয়া কঠিন হবে তার জন্য।

৪. এন’গোলো কান্তে

ফ্রান্স এবং চেলসি

এন'গোলো কান্তে
এন’গোলো কান্তে

২০২১ সালে এন’গোলো কান্তের গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ০
  • অ্যাসিস্ট: ১
  • পুরস্কার: চ্যাম্পিয়ন্স লীগ

কোন গোল নেই, একটা মাত্র অ্যাসিস্ট! এই ফুটবলার কিভাবে ব্যালন ডি’অর জয়ের অন্যতম দাবীদার! আসলে খেলা না দেখলে বোঝা যাবে না কেন এন’গোলো কান্তে আছেন এই লিস্টে। সারা মাঠ জুড়ে থাকেন যেন তিনি। ইংলিশ ক্লাব চেলসির হয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা জয়ে অন্যতম প্রধান ভূমিকা রাখেন তিনি। সেমি ফাইনালের দুই লেগ আর ফাইনালে ম্যান অব দ্য ম্যাচ অন তিনি।

তবে জাতীয় দল ফ্রান্সের ভরাডুবির কারনেই তিনি হয়তো ২০২১ এর ব্যালন ডি’অর জয়ী হতে পারবেন না। কেননা ইউরো ২০২০ এর হট ফেবারিট হয়েও শেষ ১৬ তে সুইজারল্যান্ডের কাছে হেরে বাদ পরে ফ্রান্স। আর এতেই এন’গোলো কান্তের ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ের স্বপ্ন অনেকটা নিভে যায়। তবে শীর্ষ তিনে জায়গা করে নিতে পারবেন কিনা তা নির্ভর করছে নতুন মৌসুমের শুরুতে তার পারফর্মেন্সের উপর।

৩. রবার্ট লেওয়ান্ডভস্কি

পোল্যান্ড এবং বায়ার্ন মিউনিখ

রবার্ট লেওয়ান্ডভস্কি
রবার্ট লেওয়ান্ডভস্কি

২০২১ সালে রবার্ট লেওয়ান্ডভস্কির গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ৩৪
  • অ্যাসিস্ট: ৪
  • পুরস্কার: বুন্দেসলিগা এবং ক্লাব বিশ্বকাপ

দুর্ভাগ্যই বলা যায়। করোনা ভাইরাসের কারনে ফ্রান্স ফুটবল ২০২০ সালের ব্যালন ডি’অর পুরষ্কার প্রদান বাতিল না করলে নিশ্চিত ভাবেই রবার্ট লেওয়ান্ডভস্কির হাতে উঠত এই পুরস্কার। তবে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়েরও প্রবল দাবীদার এই পোলিশ তারকা।

যদিও ইউরো ২০২০ এ ৩ ম্যাচে ৩ গোল করেছেন, কিন্তু দল কোন জয় না পেয়েই বাদ পড়েছে গ্রুপপর্ব থেকে। তাই তিনি যদি ক্লাবের মত জাতীয় দলের হয়েও ভালো কিছু করতে পারতেন তাহলে হয়তো এবারের ব্যালন ডি’অর তিনিই জয়ী হতেন। তবে এখনো খুব ভালো সুযোগ আছে লেওয়ান্ডভস্কির, যা নির্ভর করছে নতুন মৌসুমে মেসি, জর্জিনহো এবং তিনি কেমন করেন তার উপর।

২. জর্জিনহো

ইতালি এবং চেলসি

জর্জিনহো
জর্জিনহো

২০২১ সালে জর্জিনহোর গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ৫
  • অ্যাসিস্ট: ২
  • পুরস্কার: চ্যাম্পিয়ন্স লীগ এবং ইউরো ২০২০

জর্জিনহো সফলতা পেয়েছেন ক্লাব ও আন্তর্জাতিক – উভয় পর্যায়েই। ইংলিশ ক্লাব চেলসির হয়ে উয়েফা চ্যাম্পিয়ন্স লিগের শিরোপা জয়ের পর, ইউরো ২০২০ তেও ইতালির শ্রেষ্ঠত্ব অর্জনে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখেন তিনি। তাই অনেকেই তাকে ব্যালন ডি’অর ২০২১ জয়ের লড়াইয়ে মেসির প্রধান প্রতিদ্বন্দ্বী হিসেবে মনে করছেন।

মেসির তুলনায় তারকাখ্যাতি কম থাকাতেই বোধয় জর্জিনহো পক্ষে ব্যালন ডি’অর জেতা কঠিন হবে। তবে ব্যক্তিগত পারফরম্যান্সের পাশাপাশি ব্যালন ডি’অর তাঁরাই পান যাঁদের ঝুলিতে আছে শিরোপা। তাই নতুন মৌসুমেও ভালো শুরু করলে জর্জিনহোর হাতেই দেখা যেতে পারে ব্যালন ডি’অর ২০২১। তবে শেষ পর্যন্ত পারবেন কিনা, তা জানতে অপেক্ষা করতে হবে ডিসেম্বর মাস পর্যন্ত।

১. লিওনেল মেসি

আর্জেন্টিনা, বার্সেলোনা এবং প্যারিস সেন্ট জার্মেইন

লিওনেল মেসি
লিওনেল মেসি

২০২১ সালে লিওনেল মেসির গোল, অ্যাসিস্ট এবং পুরস্কারসমূহ:

  • গোল: ৩৩
  • অ্যাসিস্ট: ১৪
  • পুরস্কার: কোপা আমেরিকা ও কোপা দেল রে

স্প্যানিশ ক্লাব বার্সেলোনার হয়ে ২০২০-২১ মৌসুমে উয়েফা চ্যাম্পিয়নস লীগ বা লা লিগায় চ্যাম্পিয়ন হতে না পারলেও লা লিগায় সর্বোচ্চ গোলদাতার পুরস্কার (পিচিচি ট্রফি) জেতেন মেসি। আর চ্যাম্পিয়ন্স লিগেও ৬ ম্যাচে করেছেন ৫ গোল। অবদান রেখেছেন কাতালানদের কোপা দেল রে জয়ে। এরপর ব্রাজিলের মাটিতে জাতীয় দল আর্জেন্টিনার হয়ে কোপা আমেরিকা ২০২০ এর চ্যাম্পিয়ন হয়েছেন তিনি। আর এতেই পূরণ হয়েছে মেসির আন্তর্জাতিক শিরোপা জয়ের অধরা স্বপ্ন।

দীর্ঘ ২৮ বছর পর আর্জেন্টিনাকে কোন আন্তর্জাতিক শিরোপা জেতানোর কারিগর মুলত মেসিই। টুর্নামেন্টের শীর্ষ গোলদাতা (৪ গোল) আর শীর্ষ অ্যাসিস্টে (৫ অ্যাসিস্ট) হয়েছেন কোপার সেরা খেলোয়াড়। তাই ক্যারিয়ারের সপ্তম ব্যালন ডি’অর জেতার স্বপ্ন দেখতেই পারেন মেসি এবং তার ভক্তরা।

সর্বশেষ আপডেট: জুলাই ২০২১



error: