টপ ৫: বিশ্বের সবচেয়ে দৃষ্টিনন্দন মসজিদ

মুসলিমদের পবিত্র ঘর বলা হয় মসজিদ কে। বিশ্ব জুড়ে ছড়িয়ে আসে দৃষ্টিনন্দন অসংখ্য মসজিদ। আল্লাহর ঘর বলে পরিচিত মসজিদকে বিশ্বের বিভিন্ন এলাকায় তৈরি করেছে বিভিন্ন আকর্ষণীয় রূপে। আমরা এমনি পাঁচটি সুন্দর ও আকর্ষণীয় মসজিদের কথা জানব।

বিশ্বের সবচেয়ে দৃষ্টিনন্দন ৫টি মসজিদ

মসজিদ আল-হারাম

মসজিদ আল-হারাম

মসজিদ আল-হারাম

মক্কা ইসলাম ধর্মের পবিত্র নগরী হিসেবে স্বীকৃত। আল হারাম মসজিদ পবিত্র কাবা শরিফ কে ঘিরে এই মক্কা নগরীতে অবস্থিত। এই মসজিদে মুসল্লিরা নামাজের সময় কাবার দিকে মুখ করে দাঁড়ায়। হজ্জ ও উমরার জন্যও মসজিদুল হারামে মুসল্লিদের যেতে হয়। মসজিদ সার্বক্ষণিক খোলা থাকে। হজ্জের সময় এখানে উপস্থিত হওয়া মানুষের জমায়েত পৃথিবীর বৃহত্তম মানব সমাবেশের অন্যতম। যা মক্কা নগরীতে এক বিরল সৈন্দর্য সৃষ্টি করে। এছাড়াও জমজম কুয়া আল হারামের মধ্যে অবস্থিত। যা দর্শনে প্রতি বছর লক্ষ লক্ষ মুসল্লি ভিড় করে। আল হারাম মসজিদ মুসলিম ইতিহাসে যেমন পবিত্র ও ঐতিহাসিক তেমনি এর সৌন্দর্যও অনন্য।

সুলতান আহমেদ মসজিদ

সুলতান আহমেদ মসজিদ

সুলতান আহমেদ মসজিদ

এই ঐতিহাসিক মসজিদটি তুরস্কের রাজধানী ইস্তাম্বুলে অবস্থিত। “সমুদ্রের জল রাশি যেন এই মজসিদটিকে সাজিয়েছে” এখানে ডুকলে এমনটাই মনে হয় দর্শনার্থীদের। মসজিদটির ভিতর নীল রঙের টাইলস দিয়ে সাজানো হয়েছে। বাইরে থেকে এই নীল রঙের ঝিলিক দেখে অনেকেই এই মসজিদ কে “ব্লু মস্ক” বা “নীল মসজিদ” বলে থাকে। ১৬০৯ থেকে ১৯১৬ সালের মধ্যে ওসমানীয় সাম্রাজ্যের সুলতান আহমেদ বখতি এই মসজিদ নির্মাণ করেন।মসজিদ কমপ্লেক্সে একটি মাদ্রাসা, একটি পান্থনিবাস এবং প্রতিষ্ঠাতার সমাধি অবস্থিত। ইস্তাম্বুলে ভ্রমণরত মুসলিদের অন্যতম পছন্দের স্থান এই ব্লু মস্ক!

জামা মসজিদ

জামা মসজিদ

জামা মসজিদ

ভারতের দিল্লির জামা মসজিদ বিশ্বজুড়ে নান্দনিক সৌন্দর্যমণ্ডিত মসজিদগুলোর একটি। মসজিদের ফাটলে এবং তার সিঁড়ি ও গম্বুজের ওপরে শত শত পায়রার বসতি স্থাপন করার দৃশ্য দর্শনার্থীদের প্রথমেই আকৃষ্ট করে। দিনে মসজিদের সমৃদ্ধ স্থাপত্য নকশা অধ্যয়নের জন্য খোলা থাকে। মসজিদের প্রাঙ্গণের তিন দিক থেকে উন্মুক্ত দ্বার রয়েছে। পূর্বদিকের দ্বারের ছাদটির ওপর মৌচাকের মতো খোদাই করা খিলান নির্মিত। বেশ কিছু ছোট সুদৃশ্য গম্বুজ দ্বারা সুসজ্জিত করা। এটি ভারতের অন্যতম বৃহতম মসজিদ। স্থানীয়রা একে জামে মসজিদ বলে চিনে।

হাসান আল বোখিয়া মসজিদ

হাসান আল বোখিয়া মসজিদ

হাসান আল বোখিয়া মসজিদ

হাসান আল বোখিয়া মসজিদ ব্রুনাইয়ে অবস্থিত বিশ্বের অন্যতম একটি দৃষ্টিনন্দন মসজিদ। এই মসজিদটি হাসান আল বোখিয়া মসজিদ মু’জাদিন ওয়াদ্দুলাহ’র নামে নামকরণ করা হয়েছে। এটি সুলতানের সিংহাসন আরোহনের ২৫ বছর পূর্তি উপলক্ষে ব্রুনাইবাসিদের প্রতি সুলতানের একটি উপহার ছিল। এই হাসানাল বলখিয়া মসজিদটিতে একসঙ্গে ৩০ হাজার মুসল্লি নামাজ আদায় করতে পারেন। এটি পৃথিবীর হাতে গোণা কয়েকটি দৃষ্টিনন্দন মসজিদের একটি। আয়তনের দিক দিয়ে এটিই বিশ্বের বৃহত্তম মসজিদ। তবে ধারণ ক্ষমতার দিক থেকে বিশ্বের দ্বিতীয় বড় মসজিদ এটি। মসজিদের ভবনটির সঙ্গে ঘোহারশাদ মসজিদ, একটি জাদুঘর, একটি পাঠাগার, চারটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান, একটি সমাধিক্ষেত্র, রাজাভি ইউনিভার্সিটি অব ইসলামিক সায়েন্সেস, জিয়ারতকারীদের জন্য খাবার ঘর, সালাত আদায়ের জন্য বিশাল কক্ষ এবং আরও অনেক ভবন রয়েছে। আয়তনের হিসাবটি এসব ভবন ও তার প্রাঙ্গণ যোগ করে ধরা হয়েছে। ইরানের পর্যটন কেন্দ্রগুলোর মধ্যে ইমাম রেজার মাজার ভবনটি অন্যতম একটি। মাজার ভবনটির আয়তন ২ লাখ ৬৭ হাজার ৭৮ মিটার। মাজারের সাতটি প্রাঙ্গণের আয়তন ৩ লাখ ৩১ হাজার ৫৭৮ মিটার। মোট ৫ লাখ ৯৮ হাজার ৬৫৭ মিটার। পশ্চিম পাশে একটি মসজিদ রয়েছে। মসজিদটির নাম বালা সার মসজিদ। বালা সার মসজিদটি মাহমুদ গজনির শাসনামলের সময় নির্মিত হয়েছিল।

গ্র্যান্ড জামে মসজিদ

গ্র্যান্ড জামে মসজিদ

গ্র্যান্ড জামে মসজিদ

গ্রান্ড জামে মসজিদ পাকিস্তানের লাহোরের বরিহা শহরে অবস্থিত বিশ্বের অন্যতম বৃহত্তম মসজিদ। এই মসজিদে ৭০ হাজারের বেশি মুসল্লি একসঙ্গে নামাজ আদায় করতে পারেন। দৃষ্টিনন্দন এই মসজিদটি পাকিস্তানের তৃতীয় ও বিশ্বের সপ্তম বড় মসজিদ। মসজিদের ভিতরে ২৫ হাজার ও মসজিদ প্রাঙ্গণে আরও ৫০ হাজার মুসল্লি জমায়েত হতে পারেন। বিশাল এই মসজিদ তৈরিতে খরচ হয়েছে ৩৯ মিলিয়ন মার্কিন ডলার। এর রয়েছে চারটি মিনার।পুরো মসজিদে ব্যবহৃত হয়েছে ৪০ লাখ মুলতানি টাইলস। তুর্কি থেকে আনা হয়েছে চমৎকার কার্পেট; ইরান থেকে ৫০টি ঝাড়বাতি।

আরো আছে: গ্রেট মস্ক অব সামারা, দিয়ানেট সেন্টার মস্ক, শেখ জায়েদ মসজিদ, উমাইয়া মসজিদ, মসজিদ-ই জামেহ, লা মেজকিতা ইত্যাদি।

এই মসজিদগুলো যে শুধু দেখতেই সুন্দর তা-ই নয়, বরং বহু পুরানো ইতিহাস ও স্থাপত্যশিল্পের সাক্ষী হিসেবেও সমৃদ্ধ। এখানে এরকম কয়েকটি মাত্র মসজিদের সংক্ষিপ্ত পরিচিতি উল্লেখ করা হলেও সারা বিশ্বেই এরকম আরও অনেক দৃষ্টিনন্দন মসজিদ রয়েছে।

লেখক: Imon Barman

data-matched-content-rows-num="2" data-matched-content-columns-num="2"

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *